Scroll to top

করদাতাকে হয়রানি করলে ব্যবস্থা: এনবিআর চেয়ারম্যান

করদাতাকে হয়রানি করলে ব্যবস্থা: এনবিআর চেয়ারম্যান



জাতীয় রাজস্ব বোর্ডের (এনবিআর) চেয়ারম্যান মোশাররফ হোসেন ভূঁইয়া বলেছেন, আয়কর মেলার উদ্দেশ্য শুধু কর সংগ্রহ করা নয়, যারা সমাজে সামর্থ্যবান তাদের কর দিতে উদ্বুদ্ধ করা।

বুধবার (২০ নভেম্বর) দুপুরে রাজধানীর অফিসার্স ক্লাবে ২১ করপোরেট প্রতিষ্ঠানের কাছ থেকে আয়কর গ্রহণের সময় তিনি এসব কথা বলেন।

এনবিআর চেয়ারম্যান মোশাররফ বলেন, সাধারণ মানুষ আয়কর মেলাকে নির্ভরযোগ্য জায়গা মনে করেন। তবে করদাতারা সারাদেশে যে ট্যাক্স জোন গুলো আছে সেখানেও নির্ভরযোগ্যভাবে ট্যাক্স দিতে পারবেন। এক্ষেত্রে যদি কেউ করদাতাকে হয়রানি করতে চায় তাহলে তার বিরুদ্ধে যথাযথ ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

তিনি বলেন, দেশ এগিয়ে যাচ্ছে, আমাদের নৈতিক দায়িত্ব আয়কর দেওয়া। বর্তমানে মোট দেশজ উৎপাদন (জিডিপি) গ্রোথ আট শতাংশের বেশি। এটি ধরে রাখতে হবে। নতুন করদাতা সংগ্রহের কাজ চলছে। এজন্য আমরা বিভিন্ন জেলা উপজেলা পর্যায়ে কর্মসূচি গ্রহণ করেছি এটিও তার একটি অংশ বলে তিনি জানান।

তিনি আরও বলেন, আজ ২১টি করপোরেট প্রতিষ্ঠানের ২৯৩ কোটি টাকা রির্টান সাবমিট করেছে। মঙ্গলবার (১৯ নভেম্বর) পযর্ন্ত আমাদের রাজস্ব আদায় হয়েছে দুই হাজার ১৬ কোটি ৪৫ লাখ ২১ হাজার ১২০টাকা। রিটার্ন দাখিল হয়েছে ৫ লাখ ৩৯ হাজার ৯১০টি। সেবা গ্রহণ করেছেন ১৫ লাখ ১২ হাজার ৫৯২ জন করদাতা। রিটার্ন দাখিল  করেছেন  পাঁচ লাখ ৩৯ হাজার ৯১০ জন। আর নতুন ইলেকট্রনিক ট্যাক্স আইডেন্টিফিকেশন নাম্বার (ই-টিআইএন) নিবন্ধন করেছেন ২৬ হাজার ৮৩১ জন।

এনবিআর চেয়ারম্যান বলেন, কর দেওয়ায় মানুষের আগ্রহের পরিমাণ ক্রমাগতভাবে বাড়ছে। মানুষ এখন কোনোরকম হয়রানি ছাড়াই স্বাচ্ছন্দে আয়কর রিটার্ন জমা দিচ্ছেন।

তিনি বলেন,  আজ মেলার শেষ দিনে রাত আটটা পর্যন্ত আয়কর নেওয়া হবে। তবে যতক্ষণ পর্যন্ত  করদাতা লাইনে উপস্থিত থাকবেন ততক্ষণ পর্যন্ত তাদের আয়কর রিটার্ন গ্রহণ করা হবে।

আয়কর গ্রহণ অনুষ্ঠানে আরও উপস্থিত ছিলেন ২১ করপোরেট প্রতিষ্ঠানের প্রতিনিধিরা।

 

News Source: বাংলা নিউজ ২৪